ঘুষ নেওয়ার সময় দুদকের হাতে ধরা ওয়াকফ প্রশাসনের সহকারী পরিচালক মোতাহার হোসেন খান।

অবৈধ কাজ পাপ। যখন সে অবৈধ কাজ বেশী হয়ে যায়, তাকে মহাপাপ বলে। কোন্  অবৈধ কাজ বেশী পাপ, কোন্ টা কম পাপ তা পরিমাপের কোন মাপকাঠি নেই। কমনসেন্স দ্বারা তা বুঝে নিতে হয়। বিষয়টি অনেকটা “কে ”কতগুন” বেশী মেধাবী, কে ”কতগুন” বেশী সৎ/অসৎ, কার কাজ ”কতগুন”  বেশী কঠিন, ……।- http://corruptionwatchbd.com/57-2/ “ এর মত।

কারও সাথে অবৈধ যৌন সম্পর্ককে অবৈধ যৌনাচার বলে, যাহা মহাপাপ। কিন্তু সে অবৈধ যৌনাচার যদি এমন কোন আপন জনের সাথে হয়, যার সাথে ধর্মে বিবাহ সম্পর্ক নিষিদ্ধ করা হয়েছে, তখন সে যৌনাচারকে “অযাচার” বলে। এই অযাচার কি ধরনের বা কি পরিমান মহাপাপ তা জানা যায়নি বা পরিমাপ করা সম্ভব নহে। তবে এটা বলা যায় যে, কালের পরিক্রমায়, হাজার হাজার বছর থেকে যেভাবে অবৈধ যৌনাচার বা পরকীয়া চলে আসছে, ঘুষ-দুর্নীতির ন্যায় তা ওপেন-সিক্রেট। ইউরোপ আমেরিকার মত দেশগুলোতে তা সিক্রেট নহে, ওপেন। কিন্তু সেই ওপেন-সিক্রেটের দেশগুলোতেও “অযাচার” চরম ঘৃনার বিষয়। আমাদের মত মুসলিম প্রধান দেশগুলোতে তা(“অযাচার”) আরও বেশী ঘৃনার বিষয়।

একইভাবে ঘুষ দুর্নীতি অপরাধ বা পাপ। কিন্তু কালের পরিক্রমায় ও ব্যাপকতায়, এটাও আমাদের দেশে ওপেন-সিক্রেট হয়ে গেছে। মসজিদ, মাদ্রাসা, মাজারের মত ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে অনেকে সম্পত্তি দান করেন, যাকে ওয়াকফ সম্পত্তি বা ওয়াকফ এস্টেট বলে।(মাজার নিয়ে বিতর্ক থাকলেও অর্থাৎ তা ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান কিনা তা বিতর্কের বিষয় হলেও কবর হিসাবে তা অবশ্যই পবিত্র স্থান)। সম্পত্তি  ব্যক্তিগত হলেও দান করার পর তা জনগনের তথা সরকারী হয়ে যায় যাকে ওয়াকফ  সম্পত্তি বলা হয়।  এসব স্থানের সম্পত্তি তথা ওয়াকফ সম্পত্তি বিক্রীতে যাতে কোন অনিয়ম-দুর্নীতি না হয়, সেজন্য সরকার ধর্ম মন্ত্রনালয়ের অধীনে ওয়াকফ প্রশাসক নিয়োগ করেন। কখনও কখনও জেলা প্রশাসকের মত গুরুত্বপূর্ন অফিসাররা ওয়াকফ প্রশাসক হন।

ধার্মিক, সাধারন লোক বা মোতওয়াল্লী হোন আর সরকারী অফিসার-স্টাফ যাহাই হোন না কেন, হাজার বছর থেকে চলে আসা দুর্নীতি যে কেহই করতে পারে। মোতওয়াল্লীরাও ওয়াকফ সম্পত্তি বিক্রীতে ক্রেতার সাথে যোগসাজশে দাম-দস্তুরে অনিয়ম-দুর্নীতি করতে পারে। এ অনিয়ম-দুর্নীতি যাতে করতে না পারে, বিক্রয়লব্ধ অর্থের যাতে নয়-ছয় না হয়, সেজন্যই ওয়াকফ প্রশাসক নিয়োজিত হন। ওয়াকফ সম্পত্তি বিক্রীতে ওয়াকফ প্রশাসকের দুর্নীতি শুধু পাপ নহে, “অযাচার”-এর মত মহাপাপ। এরা জারজের চেয়ে অধম। আরও দেখুন- জারজ তত্ব(Bastard theory)( অশ্লীল মনে না করে অনুগ্রহপূর্বক পড়ুন, মানুষের চরিত্র বুঝার জন্য এর প্রয়োজন আছে- http://corruptionwatchbd.com/32-2/ )।

মসজিদের জমি বিক্রীতে ঘুষ!!  প্রকৃত দোষী হলে একে ক্রস ফায়ারে/ব্রাস ফায়ারে মারা উচিৎ।

Related posts