বিসিএস(প্রশাসন) এর প্রশাসন মানে কি?

বিসিএস(প্রশাসন) এর প্রশাসন মানে কি, জেলা প্রশাসক –এর প্রশাসক মানে কি? তারা কি শাসন করেন? কাকে করেন, কেন করেন? বিভাগীয় কমিশনার কেন বিভাগীয় প্রশাসক বা শাসক নহেন? বাংলাদেশে প্রধানমন্ত্রীর পরেই আমাদের দেখামতে সিম্পলী একজন উপসচিব-জেলা প্রশাসকের লজিস্টিক সাপোর্ট। সহকারী কমিশনার(ভূমি) থেকে মন্ত্রনালয়ের সচিবদের মান-মর্যাদা, ক্ষমতা, ওয়ারেন্ট অব প্রিসিডেন্সে অবস্থান, ইত্যাদি কেন অন্য সকলের উপরে? কারন তাদেরকে মানুষের(দেশের জনগনের), দেশের সম্পদের অভিভাবক বানানো হয়েছে। কেহ অন্যায় করলে তাকে শাসন করার জন্য। যেরূপ শাসন করেন পিতা-মাতা, গুরুজন, অভিভাবকরা, শিক্ষকরা। অভিভাবকরা নিজেরাই যদি দোষ বা অপরাধ করেন, তাহলে তাঁরা যত ক্ষমতাবনই হোন সুশাসনতো দূরের কথা, শাসনই করতে পারবেননা। অপরাধী অভিভাবকরা শাসনের নামে অত্যাচার-জুলুম করতে পারবেন। আর শাসন করতে গেলেও প্রজারা/সন্তানরা সে শাসন মানলেও তা শ্রদ্ধার চোখে নহে,ঘৃনার চোখে।

বিশ্বনবী হযরত মুহম্মদ(সঃ)-এর শিক্ষাই যথেষ্ঠ আমাদের প্রশাসক নামের অভিভাবকদের জন্য। অন্যের ছেলেকে মিষ্টি খেতে নিষেধ করার পূর্বে তিনি আগে নিজে মিষ্টি খাওয়া বন্ধ করেছিলেন। আরও কথা আছে, চোরে না শুনে ধর্মের কাহিনী। আমাদের প্রশাসক নামের অভিভাবকদের সিংহভাগই চোর। তারা ধর্মের কাহিনী শুনবে কেন?

একজন জেলা ও দায়রা জজ বলেছেন, প্রকৌশলী-ডাক্তার-রাজনীতিকসহ অন্যরা দুর্নীতিবাজ হতে পারে বলেইতো, যাতে তারা(প্রকৌশলী-ডাক্তার-রাজনীতিকসহ অন্যরা) তা(দুর্নীতি) করতে না পারে, সেজন্য  প্রশাসক-বিচারক-দুদক-রেখেছে। তাই প্রশাসক-বিচারক-দুদক-এর ঘুষ-দুর্নীতির পক্ষে যে যত কথাই বলুক বা যত যুক্তিই দেখাক না কেন, অন্যদের(প্রকৌশলী-ডাক্তার-রাজনীতিকসহ অন্যরা) পাহাড়সম দুর্নীতির বিপরীতে প্রশাসক-বিচারক-দুদক-এর চুল পরিমান দুর্নীতিও গ্রহনযোগ্য নহে।

Related posts