বিচারাধীন বিষয়ে কেন সংবাদ প্রকাশ নহে?

বিচারাধীন বিষয়ে সংবাদ প্রকাশ করা যাবেনা, এরূপ কোন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক আইন নেই। বরং এরূপ বিধিনিষেধ আরোপের জন্য নূতন আইন করতে যাওয়ায় ভারতের সর্বোচ্চ আদালত বলেছেন, http://archive.prothom-alo.com/detail/news/288709 বিচারাধীন মামলার সংবাদ প্রকাশে বিধি নিষেধ নয়।
”বিচারাধীন মামলার সংবাদ প্রকাশের ক্ষেত্রে গণমাধ্যমের জন্য নির্দেশাবলি প্রণয়নের বিষয়টি নাকচ করেছেন ভারতের সর্বোচ্চ আদালত। গতকাল মঙ্গলবার ভারতের সুপ্রিম কোর্টের পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ এ মত দিয়েছেন।
তবে আদালত বলেছেন, যদি কোনো ভুক্তভোগী প্রমাণ করতে পারেন যে গণমাধ্যমের প্রতিবেদন তাঁর ন্যায়বিচার পাওয়ার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেছে, সে ক্ষেত্রে সংবাদ প্রচারে সাময়িক স্থগিতাদেশ আরোপ করা যেতে পারে।
আদালত বলেছেন, নতুন প্রবর্তিত স্থগিতকরণ ধারণার লক্ষ্য বিচার শেষ হওয়ার আগ পর্যন্ত অভিযোগকারীর অধিকার ও একই সঙ্গে গণমাধ্যমের বাকস্বাধীনতার মধ্যে ভারসাম্য বজায় রাখা। আদালত আরও বলেন, সাময়িক স্থগিতাদেশের বিরুদ্ধে গণমাধ্যম আপিল করতে পারবে।”
যদি গোপনে না হয়ে, প্রকাশ্য আদালতে বিচারকাজ চলতে পারে, যেখানে বিচার কাজটি একাধিক এমনকি শতশত লোকের সামনে এজলাসে হয়ে থাকে, যারা শুধু পক্ষ-বিপক্ষ নহে, প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকসহ, অর্থাৎ নিরপেক্ষ। এরূপ নিরপেক্ষ কয়েকজন, কয়েকশত লোক বিচারকাজ দেখলে, জানতে পারলে, হাজার হাজার বা সংবাদ প্রকাশের মাধ্যমে দেশবাসী/বিশ্ববাসী জানলে অসুবিধা কি?
যুদ্ধাপরাধীদের বিচার নিয়ে গনজাগরন মঞ্চ, কয়েকজন মন্ত্রী এমনকি অবসরপ্রাপ্ত জনৈক বিচারপতির মন্তব্যও কোন প্রভাব ফেলতে পারেনি। তাহলে বিচারাধীন মামলার সংবাদ প্রকাশে অসুবিধা কি? যদি অসুবিধা হয়, তাহলে বিচারপ্রার্থীরাই বুঝবে তাদের কি অসুবিধা হচ্ছে, না হচ্ছে। বিচারক, আইনজীবিদের কোন অসুবিধা হওয়ার কথা নহে।
কিন্তু বিচারাধীন মামলার সংবাদ প্রকাশ হলে প্রকাশ্যে অপ্রকাশ্যে বিচারকরা, বিশেষ করে নিম্ন আদালতের কোন কোন বিচারক(সবাই নহে) অসন্তোষ প্রকাশ করেন। কেননা এতে তাদের অযোগ্যতা, অদক্ষতা, অসততা প্রকাশ হয়ে পড়ে। ফলে তারা অনুমান করে কোন্ বিচারপ্রার্থী সাংবাদিকের কাছে তথ্য সরবরাহ করেছে। সে অনুমান ও সন্দেহের ভিত্তিতে তারা(বিচারকরা) বিচারপ্রার্থীর উপর ক্ষেপে যায় এবং তাদের(বিচারপ্রার্থীর) ক্ষতিসহ নানাভাবে হয়রানী করে। বিচারকরা যাদের উপর অনুমান বা সন্দেহ করে, হয়ত দেখা গেছে, তারা সংবাদ প্রকাশের ব্যাপারে কিছুই জানেনা, অথচ বিচারক তাদের উপর ক্ষেপে ক্ষতি করে ফেলেছে।
এটাই হচ্ছে বিচারাধীন মামলার সংবাদ প্রকাশের বড় বাধা বা demerit.

Related posts